ঢাকা, ফেব্রুয়ারী ২, ২০২৩, ১৯ মাঘ ১৪২৯, স্থানীয় সময়: ০৫:২১:৫৭

এ পাতার অন্যান্য সংবাদ

৫০ কোটি লিটার পয়োবর্জ্য শোধিত হয়ে যাচ্ছে বালু নদে গোপালগঞ্জে শীত জেঁকে বসেছে ব্রাজিলের সাথে বাণিজ্যিক সহযোগিতা বাড়ানোর আহ্বান প্রধানমন্ত্রীর বাংলাদেশের সাথে যুক্তরাষ্ট্র স্থায়ী অংশীদারিত্বকে গুরুত্ব দেয় : জো বাইডেন স্বাধীনতার চেতনায় সাম্প্রদায়িকতা ও জঙ্গিবাদের বিরুদ্ধে এগিয়ে যেতে হবে: ওবায়দুল কাদের ভারতীয় সাংবাদিকদের সফর দু’দেশের সম্পর্ককে নতুন উচ্চতায় নেবে : তথ্যমন্ত্রী ভারতীয় সাংবাদিক প্রতিনিধি দলকে জাতীয় প্রেস ক্লাবের সম্বর্ধনা বর্তমান সরকার দেশের মানুষের জীবনমানের সুরক্ষা নিশ্চিত করেছে: স্পিকার ১২শ’কোটি টাকা হাতিয়ে নেয়া বিষয়ে অনুসন্ধানে হাইকোর্ট নির্দেশ বঙ্গবন্ধুর স্বদেশ প্রত্যাবর্তন দিবস কাল 

জাকির নায়েককে আমন্ত্রণ করায় বিশ্বকাপ বয়কটের ডাক বিজেপির

| ৯ অগ্রহায়ন ১৪২৯ | Wednesday, November 23, 2022

jakir-1

 

 

ড. জাকির নায়েক। ছবি: সংগৃহীত

ভারত থেকে বিতাড়িত ইসলামী বক্তা জাকির নায়েককে ফিফা বিশ্বকাপে ইসলামের ওপর বক্তৃতা দেওয়ার জন্য আমন্ত্রণ জানায় কাতার। এতে ক্ষুব্ধ হয়ে বিশ্বকাপ বয়কটের ডাক দিয়েছে ভারতের ক্ষমতাসীন দল বিজেপি।

 

মঙ্গলবার (২২ নভেম্বর) বিশ্বকাপে জাকির নায়েককে আমন্ত্রণ জানানোর বিরোধিতা জানিয়ে ভারতের সরকার ও বিচার বিভাগের কাছে আপিল করেছেন বিজেপির মুখপাত্র স্যাভিও রদ্রিগেজ।

 

তার মতে, জাকিরের মতো ব্যক্তিকে আন্তর্জাতিক মঞ্চে বক্তব্য রাখার সুযোগ করে দেওয়ার অর্থ সন্ত্রাসবাদের বিরুদ্ধে লড়াইকে রুখে দেওয়া।

স্যাভিও বলেন, বিশ্বকাপ একটি আন্তর্জাতিক মঞ্চ। সারা দুনিয়ার মানুষ এই টুর্নামেন্টের দিকে তাকিয়ে থাকেন। এত গুরুত্বপূর্ণ একটি প্ল্যাটফর্মে জাকির নায়েককে বক্তৃতার সুযোগ দেওয়ার অর্থ তার ঘৃণা ছড়ানোর আদর্শকে সমর্থন করা।

এনডিটিভির খবরে বলা হয়, ইসলামী বক্তা জাকির ফিফা বিশ্বকাপে ইসলামের ওপর বক্তৃতা দেওয়ার জন্য কাতার আমন্ত্রণ জানায়। কিন্তু বিজেপির মুখপাত্র রদ্রিগেজ তার বিবৃতিতে উল্লেখ করেন, এমন সময়ে নায়েককে ডাকা হলো যখন বিশ্ব সন্ত্রাসবাদের বিরুদ্ধে লড়াই করছে। সেখানে বিদ্বেষ ছড়াতে একটি জাকির নায়েককে আমন্ত্রণের কোনো যৌক্তিকতা নেই।

জাকির নায়েকের বিরুদ্ধে ঘৃণা উদ্রেককারী বক্তব্য ছড়িয়ে দেওয়া এবং সন্ত্রসবাদে উসকানি দেওয়ার অভিযোগ রয়েছে। জাকির নায়েক নায়েক তার টেলিভিশন চ্যানেল ‘পিস টিভি’র মাধ্যমে কট্টরপন্থী ইসলামী মতবাদ প্রচার করে থাকেন বলেও অভিযোগ রয়েছে।