ঢাকা, জুলাই ২১, ২০১৮, ৬ শ্রাবণ ১৪২৫, স্থানীয় সময়: ১২:০৪:১৮

এ পাতার অন্যান্য সংবাদ

ইস্কন না,গঞ্জের উদ্যোগে আজীবন সদস্য সন্মেলন অনুষ্ঠিত । রাষ্ট্রপতি আগামীকাল দেশে ফিরছেন এইচএসসি ও সমমানের পরীক্ষার ফল প্রকাশ আগামীকাল অন্যায়, অবিচার ও বৈষম্যহীন বিশ্ব গড়তে বিশ্ববাসীর সাথে বাংলাদেশ সহযাত্রী হবে : স্পিকার দেশব্যাপী সাংস্কৃতিক উৎসব ২০ ও ২১ জুলাই ক্রোয়েশিয়াকে হারিয়ে বিশ্বকাপ জিতলো ফ্রান্স মন্ত্রিসভায় মানসিক স্বাস্থ্য বিষয়ক খসড়া আইন অনুমোদিত সংসদ নির্বাচনে ইভিএম ব্যবহারে এখনো সিদ্ধান্ত হয়নি রোহিঙ্গা শরণার্থীদের মিয়ানমারে প্রত্যাবাসনে তার সংস্থা সবরকম সহায়তা করবে : আইওএম মহাপরিচালক ইস্কনের উদ্যোগে না’গঞ্জে বর্ণাঢ্য সাজে জগন্নাথ দেবের বিশাল রথযাত্রা,শোভাযাত্রাসহ সেচ্ছাসেবক হিসেবে হিন্দু হেরিটেজ ফাউন্ডেশনের সেববাদান ।

রোহিঙ্গাদের জন্য বিএনপির ত্রাণ বিতরণ নিছক মায়াকান্না : ওবায়দুল কাদের

দেশের খবর | ৩০ ভাদ্র ১৪২৪ | Thursday, September 14, 2017

কক্সবাজার : আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক এবং সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের বলেছেন, রোহিঙ্গাদের জন্য বিএনপির ত্রাণ বিতরণ নিছক মায়াকান্না ছাড়া কিছু নয়। তিনি বলেন, বাংলাদেশে আশ্রয় নেয়া রোহিঙ্গাদের জন্য সরকার সম্ভাব্য সব কিছু করছে। তাদেরকে না খেয়ে থাকতে হবে না।
বুধবার সকালে কক্সবাজারের উখিয়ায় কুতুপালং শরণার্থী ক্যাম্প পরিদর্শন ও ত্রাণ বিতরণকালে ওবায়দুল কাদের এসব কথা বলেন। ওবায়দুল কাদের বলেন, সরকার সহযোগিতার হাত প্রসারিত করে অত্যন্ত মানবিক কারণে রোহিঙ্গাদের আশ্রয় দিয়েছে।
তিনি বলেন, মিয়ানমারের রাখাইনে রোহিঙ্গাদের নির্বিচারে হত্যা করা হচ্ছে, তাদের সাথে বর্বর আচরণ করা হচ্ছে। প্রাণ বাঁচাতে রোহিঙ্গারা বাংলাদেশ পালিয়ে আসছে। আমরা তাদের ঠেলে দিতে পারি না।
আওয়ামী লীগের পক্ষ থেকে গতকাল মঙ্গলবার ১৫ হাজার রোহিঙ্গার মাঝে ত্রাণ বিতরণ করা হয়। এসময় উপস্থিত ছিলেন আওয়ামী লীগ কেন্দ্রীয় কমিটির সাংগঠনিক সম্পাদক একে এম এনামুল হক শামীম, কেন্দ্রীয় কমিটির উপ-প্রচার সম্পাদক আমিনুল ইসলাম, কক্সবাজার জেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি এডভোকেট সিরাজুল মোস্তাফা, সাধারণ সম্পাদক মুজিবুর রহমান, সহ-সভাপতি রেজাউল করিম, সাংগঠনিক সম্পাদক নাজনীন সরওয়ার কাবেরী প্রমুখ।
মিয়ানমারের রাখাইন রাজ্য থেকে পালিয়ে আসা হিন্দু সম্প্রদায়ের ৫২৩ জনকে দেখতে যান আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ওবায়দুল কাদের।
বুধবার সকাল ১১টায় কক্সবাজারের উখিয়ার কুতুপালং পশ্চিম হিন্দু পাড়ায় গিয়ে মন্ত্রী আশ্রয় নেয়া এসব লোকজনের খোঁজখবর নেন। মন্ত্রী তাদের ওপর নির্যাতনের কথা মনোযোগ সহকারে শোনেন। মন্ত্রী আশ্রয় নেয়া হিন্দু সম্প্রদায়কে প্রধানমন্ত্রীর পক্ষ থেকে দেয়া ৫০ হাজার টাকা প্রদান করেন।