ঢাকা, ডিসেম্বর ১০, ২০১৮, ২৫ অগ্রহায়ন ১৪২৫, স্থানীয় সময়: ০৫:৫০:১৫

এ পাতার অন্যান্য সংবাদ

জাতিসংঘে হামাসের বিরুদ্ধে মার্কিন নিন্দা প্রস্তাব নাকচ রাজস্থান ও তেলেঙ্গানায় বিধানসভার ভোটগ্রহণ:রাজস্থানে ৭২.৭০ শতাংশ এবং তেলেঙ্গানায় প্রায় ৬৭ শতাংশ ভোট পড়েছে ড্রোন হামলায় হেলমান্দের তালেবান কমান্ডার নিহত জ্বালানি কর বাড়ানো থেকে পিছু হটছে ফ্রান্স ওয়াশিংটনে প্রয়াত প্রেসিডেন্ট বুশের প্রতি শ্রদ্ধা জানালেন ট্রাম্প মার্কিন কংগ্রেসে জামায়াতে ইসলামীর বিরুদ্ধে বিল পেশ ট্রাম্পের কাছে ইউক্রেন পরিস্থিতি তুলে ধরলেন পুতিন বাণিজ্য যুদ্ধ বন্ধে সম্মত যুক্তরাষ্ট্র ও চীন কলকাতার মেয়র হলেন ফিরহাদ হাকিম মোহাম্মদ বিন সালমানের সমালোচনা সহ্য করবে না সৌদি আরব

ভারতে গণপিটুনীতে নিহতের ঘটনায় গ্রেফতার ১৫

| ২৭ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৫ | Sunday, June 10, 2018

নয়াদিল্লী : ভারতের পুলিশ গণপিটুনীতে দুই ব্যক্তি নিহতের ঘটনায় জড়িত সন্দেহে ১৫ জনকে গ্রেফতার করেছে।
ওয়াটসঅ্যাপে ছেলেধরার গুজবে ওই লোক দুটিকে পিটিয়ে হত্যা করা হয়।
রোববার দেশটির এক কর্মকর্তা একথা জানিয়েছেন। খবর এএফপি’র।
ভারতের উত্তরপূর্বাঞ্চলীয় রাজ্য আসামের উপজাতীয় অধ্যুষিত এলাকায় শুক্রবার রাতে শিশু অপহরণের সন্দেহে দুই ব্যক্তিকে তাদের গাড়ি থেকে টেনে হিচরে বের করে পিটিয়ে মেরে ফেলে উত্তেজিত জনতা। পুলিশ ঘটনাস্থলে আসার আগেই হতভাগ্য লোক দুজন গণপিটুনির শিকার হয়।
ইউটিউবের একটি ভিডিওতে দেখা গেছে, রক্তাক্ত লোক দুজন উত্তেজিত জনতার কাছে প্রাণভিক্ষা চাইছে।
রাজ্যের গুয়াহাটি নগরীর বাসিন্দা দুই বন্ধু একটি পিকনিক স্পট থেকে ফেরার পথে এ ঘটনা ঘটে।
জ্যেষ্ঠ পুলিশ কর্মকর্তা মুকেশ আগারওয়াল বলেন, ‘এই ঘটনায় আমরা ১৫ ব্যক্তিকে গ্রেফতার করেছি।’
ওই কর্মকর্তা আরো বলেন, ‘গত তিন-চারদিন ধরে হোয়াটসঅ্যাপে শিশু অপহরণকারীদের (ছেলেধরা) বিষয়ে গুজব ছড়িয়েছিল। তাই গ্রামবাসীরা ওই অপরিচিত দুজনকে ছেলেধরা হিসেবে সন্দেহ করে।’
ভারতে ভুয়া খবর ছড়িয়ে গণপিটুনীতে এ ধরনের বহু ঘটনার নজির রয়েছে।