ঢাকা, জুন ১৯, ২০১৮, ৫ আষাঢ় ১৪২৫, স্থানীয় সময়: ১৬:১৬:১৭

এ পাতার অন্যান্য সংবাদ

উন্নয়ন প্রকল্পের কাজ চলতি মাসের মধ্যে সম্পন্ন করার নির্দেশ আগামী নির্বাচনে বিএনপি অংশ না নিলে এটা হবে তাদের রাজনৈতিক আত্মহত্যা : তোফায়েল আহমেদ পবিত্র ঈদুল ফিতরের তারিখ নির্ধারণে শুক্রবার জাতীয় চাঁদ দেখা কমিটির সভা সমৃদ্ধ দেশে পরিণত করার পথকে আরো এগিয়ে নেয়ার বাজেট : সরকারি দল প্রধানমন্ত্রী দেশে ফেরার পথে দুবাই পৌঁছেছেন বিএনপি চাইলে খালেদা জিয়াকে সিএমএইচ নেওয়ার ব্যবস্থা করা হবে : স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী বিমানবাহিনী প্রধান এয়ার ভাইস মার্শাল মাসিহুজ্জামান সেরনিয়াবাতের দায়িত্বভার গ্রহণ সিরাজদিখানে প্রতিমা ভাঙচুর ব্রাহ্মণবাড়িয়ার নাসিরনগরে হিন্দুু পল্লীর বাড়িঘরে হামলা খালেদা জিয়ার চিকিৎসা নিয়ে রাজনীতি করার কোন সুযোগ নাই : নাসিম

প্রধানমন্ত্রী মঙ্গলবার রোহিঙ্গা ক্যাম্প পরিদর্শনে যাচ্ছেন

দেশের খবর, প্রধান সংবাদ | ২৬ ভাদ্র ১৪২৪ | Sunday, September 10, 2017

 

প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। পুরোনো ছবি

নতুন করে সহিংসতা সৃষ্টির পর মিয়ানমারের সেনাবাহিনীর হামলা-নির্যাতন থেকে বাঁচতে সীমান্ত পাড়ি দিয়ে বাংলাদেশে আসা রোহিঙ্গা শরণার্থীদের দেখতে কক্সবাজার যাচ্ছেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা।

আজ রোববার দুপুরে প্রধানমন্ত্রীর কার্যালয়ের প্রেস উইংয়ের পক্ষ থেকে জানানো হয়েছে, ‘প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা আগামী মঙ্গলবার কক্সবাজারের উখিয়ার কুতুপালংয়ে শরণার্থী ক্যাম্প পরিদর্শনে যাচ্ছেন।’

জাতিসংঘের দেওয়া তথ্য মতে, সহিংসতার কারণে গত ১৫ দিনে মিয়ানমার থেকে তিন লাখের মতো রোহিঙ্গা বাংলাদেশে পালিয়ে এসেছে। এ পরিসংখ্যান লাফিয়ে দিনে প্রায় ২০ হাজার করে বাড়ছে।

বাংলাদেশ সরকার মানবিক কারণে এসব শরণার্থীকে প্রাথমিক সাহায্য দিয়ে উখিয়ার বালুখালীতে বন বিভাগের জয়গায় তাদের থাকার জন্য অস্থায়ীভাবে আশ্রয়কেন্দ্র তৈরির উদ্যোগ নিয়েছে। সরকারের এই প্রচেষ্টাকে স্বাগত জানিয়েছে জাতিসংঘ, মার্কিন যুক্তরাষ্ট্র, তুরস্ক, ইউরোপীয় ইউনিয়ন, মালয়েশিয়াসহ বিশ্বের বিভিন্ন দেশ।

যদিও সরকারের পক্ষ থেকে বারবারই আন্তর্জাতিক বিভিন্ন সংস্থা ও দেশের প্রতি সহযোগিতার জন্য আহ্বান জানিয়ে বলা হয়েছে, বাংলাদেশের মতো একটি ছোট জনবহুল দেশের জন্য এই বিশাল শরণার্থীর বোঝা বহন করা কঠিন।

সরকার মিয়ানমারের ঢাকাস্থ শার্জ দ্য অ্যাফেয়ার্সকে ডেকে রোহিঙ্গাদের ফিরিয়ে নেওয়ার পাশাপাশি রাখাইনে হামলা-নির্যাতন বন্ধেরও দাবি জানানো হয়েছে।

এই অবস্থার মধ্যেই প্রধানমন্ত্রী রোহিঙ্গা শরণার্থী ক্যাম্প পরিদর্শনে যাচ্ছেন।