ঢাকা, এপ্রিল ২৩, ২০১৮, ১০ বৈশাখ ১৪২৫, স্থানীয় সময়: ১৭:৫৩:৩৯

এ পাতার অন্যান্য সংবাদ

তপন সাহা ও তার পরিবারের উপর সন্ত্রাসী হামলার ঘটনার ১১দিন পেড়িয়ে গেলেও মামলা নেয়নি সোনারগাঁ থানাপুলিশ : চরম আতংকে সংখ্যালঘু পরিবারটি। মৌলভীবাজারে আগর শিল্পপার্ক স্থাপন করা হবে : আমু এশীয় অঞ্চলের ভবিষ্যতের মূল চাবিকাঠি হচ্ছে শান্তিপূর্ণ ও স্থিতিশীলতা : প্রধানমন্ত্রী ব্রিটেনের রাণী এলিজাবেথের ২৫তম সিএইচওজিএম উদ্বোধন, বাংলাদেশের প্রধানমন্ত্রীর যোগদান কচুয়ায় বল্লব দাসের বসতবাড়ি উচ্ছেদের প্রতিবাদে বিক্ষোভ মিছিল ও সমাবেশ : পরিদর্শনে বাংলাদেশ মাইনরিটি ওয়াচ প্রধানমন্ত্রীর সাহসী ঘোষণায় লন্ডন ষড়যন্ত্রে ব্যর্থ হয়ে বিএনপি এখন হতাশ : ওবায়দুল কাদের পরিচ্ছন্নতায় নতুন রেকর্ড গড়েছে ঢাকা : এখন স্বীকৃতির অপেক্ষা বাংলা নববর্ষ বাঙালি সংস্কৃতির প্রাণের উৎস : স্পিকার রোহিঙ্গা ইস্যুতে বাংলাদেশকে সহযোগিতা দেবে তাজিকিস্তান আগামী নির্বাচনে জাতীয় পার্টি অংশ নেবে : এরশাদ

জেলখানায় খালেদা জিয়াকে অসম্মান করা হচ্ছে না: ওবায়দুল কাদের

দেশের খবর, প্রধান সংবাদ | ৩০ মাঘ ১৪২৪ | Monday, February 12, 2018

ঢাকা : সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী এবং আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ওবায়দুল কাদের বলেছেন, বিএনপি চেয়ারপার্সন বেগম খালেদা জিয়াকে সাবেক প্রধানমন্ত্রী হিসেবে কোনো ধরনের অসম্মান বা অমর্যাদা করা হচ্ছে না।
রোববার সচিবালয়ে মন্ত্রণালয়ের সভা কক্ষে আয়োজিত সংবাদ সম্মেলনে সাংবাদিকদের প্রশ্নের জবাবে তিনি এসব কথা বলেন।
ওবায়দুল কাদের বলেন, সাবেক প্রধানমন্ত্রী হিসেবে তিনি সব সুযোগ-সুবিধা পাবেন। তবে জেলখানা আরাম আয়েশের জায়গা না, জেল তো জেলই। কিন্তু জেল কোড অনুযায়ী সব সুযোগ সুবিধাই তিনি পাবেন।
তিনি বলেন, জেলকোডে গৃহপরিচারিকা অথবা ব্যক্তিগত সহকারী রাখার কোনও বিধান নাই। ওয়ান ইলেভেনের সময় আমাদের নেত্রীও জেলে ছিলেন, উনিও গৃহপরিচারিকা রাখেননি। জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবর রহমানও জেলে ছিলেন, তিনিও এ সুবিধা পাননি। এসি (এয়ার কন্ডিশন) ও জেলকোডে নেই। মোট কথা জেল কোনও আরাম আয়েশের জায়গা নয়।
‘বেগম খালেদা জিয়াকে ডিভিশন দেয়া হচ্ছে না’ বিএনপি নেতাদের এমন অভিযোগের জবাবে আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক বলেন, ‘বেগম জিয়াকে ডিভিশন দেওয়া না হলেও, হয়ত অল্প সময়ের মধ্যেই তিনি ডিভিশন পেয়ে যাবেন। তবে যেখানে তাকে রাখা হয়েছে সেটি তার থাকার উপযোগী করেই তৈরি করা হয়েছে।’
তিনি বলেন, ভবনটি পরিত্যক্ত হলেও একজন ভিআইপি আসামিকে রাখার মতো করেই ডেকোরেশন করা হয়েছে। তাছাড়া ভবনটি খুব বেশিদিনের পরিত্যক্ত নয়।